এবারের ছটপূজোর জমকালো ভিড় দেখা গেল ব্যারাকপুরের মঙ্গলপান্ডে ঘাটে

এবারের ছটপূজোর জমকালো ভিড় দেখা গেল ব্যারাকপুরের মঙ্গলপান্ডে ঘাটে

ওয়েবডেস্ক, বেঙ্গলটুডেঃ

ছটপূজো আসলে সূর্যোদেবতার পূজো। তবে এই নামের মূল মাহাত্ম্য হল, এই পূজোটি ষষ্ঠীর দিন হয় আর তাই সেখান থেকেই ছট শব্দের উৎপওি। তবে আর একটি কারনও রয়েছে এই নামের পরিপ্রেক্ষিতে। নেপাল তথা উত্তর ভারতে বেশিরভাগ মানুষ “ছয়” এই শব্দটি “ছট” বলে উচ্চারন করেন। এই পূজো মূলত ভারতের বিহার, উত্তরপ্রদেশ, নেপাল, ঝাড়খণ্ড প্রভৃতি স্থানে বসবাসকারী মানুষরা পালন করে থাকেন। ব্যারাকপুরের মঙ্গলপান্ডে ঘাটে এদিন মহারোহে পালিত হতে দেখা গেল সূর্যোদেবতার পূজো। এদিন গঙ্গার ঘাটে বিকেল নামতেই একে একে সমস্ত পূজোর সামগ্রী সহ বহু মানুষের ভীড় জমতে শুরু করে। এরপর একে একে বিভিন্ন নিয়মানুযায়ী শুরু হয় সূর্যোদেবতার পূজো। এরপর একে একে সমস্ত পূজো প্রার্থীরা গঙ্গায় জলে নেমে সূর্যোদবতার উদ্দেশ্যে নিজেদের পূজো সারেন। কেউ কেউ অর্পন করেন এবং সূর্যোদেবতার উদ্দেশ্যে ধূপ ধুনো দিয়ে আরতি করেন। তবে এই পূজো কোন প্রকার মূর্তির ব্যবহার হয়না। এমনকি পুরোহিতেরও প্রয়োজন হয় না।

এছাড়া এই পূজোর পিছনে রয়েছে একটি সামাজিক কাহিনী তা হল, অনেক সময় বৃষ্টি না হলে মাঠ ঘাট শুকিয়ে যেত ফলে ফসল ফলত না। তাই সূর্যোদেবতাকে সন্তুষ্ট করতে পারলেই মাঠ ঘাট, খালবিল শুকবে না আর ফসলও ফলবে। আর সেখান থেকেই এই পুজোর উৎপওি।

You May Share This
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *