32 C
Kolkata
Thursday, May 30, 2024
spot_img

29 Maoist Killed including One Leader – ছায়ার মতো এগিয়ে জঙ্গলের নীরবতা ভেঙে পর পর গুলি! নিখুঁত পরিকল্পনায় খতম এক শীর্ষস্থানীয় মাও নেতা সহ মোট ২৯ মাওবাদী

Web Desk, Chattisgarh, 17th April 2024: এ যেন এক হলিউড ফিল্ম। চারিদিকে ঘন জঙ্গল। শুধু পাখির শব্দ শোনা যাচ্ছে। তা ছাড়া আর একটিও কোনও শব্দ নেই বললেই চলে। সেই জঙ্গলের মধ্যে দিয়েই কিছু মানুষ বন্দুক উঁচিয়ে এগিয়ে চলেছেন খুব সাবধানে পা টিপে টিপে। প্রায় সকলের পরনেই জলপাই রঙের পোশাক। তার পরই হটাৎ জঙ্গলের মধ্যে লুকিয়ে থাকা মাওবাদীদের লক্ষ্য করে চলল পর পর গুলি!

Maoist

রোমহর্ষক এই ঘটনা ঘটে মঙ্গলবার ছত্তীসগঢ়ে। আর এ ভাবেই ২৯ জন মাওবাদীকে শেষ করল নিরাপত্তারক্ষীরা। সেই ২৯ জনের তালিকায় ছিলেন শঙ্কর রাও নামে এক শীর্ষস্থানীয় মাও নেতাও। যাঁর মাথার দাম ছিল ২৫ লক্ষ টাকা। ছত্তীশগঢ়ের মুখ্যমন্ত্রী বিষ্ণু দেও সাই জানান, মঙ্গলবারে মাওবাদীদের বিরুদ্ধে রাজ্যে সবচেয়ে বড় অভিযান হয়েছে। সেই অভিযানেরই ঝলক প্রকাশ্যে এসেছে এক নিরাপত্তারক্ষীর তোলা ভিডিয়ো থেকেই।

Maoist

সেই ভিডিয়োতে দেখা যাচ্ছে, নিরাপত্তাকর্মীরা জঙ্গলের মধ্যে দিয়ে হেঁটে যাচ্ছেন। তার পর হঠাৎই নীরবতা ভেঙে এক নিরাপত্তাকর্মী পর পর দু’টি গুলি চালান। সেই গুলি কারও গায়ে লাগল কি না তা বোঝা না গেলেও মঙ্গলবারের অভিযানের আভাস মেলে। কী ভাবে জঙ্গলের মধ্যে সাবধানতা অবলম্বন করেছেন নিরাপত্তাকর্মীরা, তা-ও জানা গিয়েছে ওই ভিডিয়ো থেকে। তবে এই ভিডিয়োর সত্যতা যাচাই করেনি বেঙ্গল টুডে।

জানা যাচ্ছে মঙ্গলবার দুপুর দেড়টা নাগাদ ছত্তীসগঢ়ের কাঙ্কের জেলার বিনাগুন্ডা গ্রামের কাছে হাপাটোলা জঙ্গলের মধ্যেই অভিযান চালায় নিরাপত্তাকর্মীরা। সেই অভিযানে শামিল ছিল ডিস্ট্রিক্ট রিজার্ভ গার্ড (ডিআরজি) এবং সীমান্ত রক্ষী বাহিনী (বিএসএফ)। গোপন সূত্রে খবর পেয়েই এই অভিযান বলে দাবি করেন বিএসএফের এক শীর্ষ আধিকারিক। এদিকে মাওবাদীদের সঙ্গে গুলির লড়াইয়ে তিন জন নিরাপত্তাকর্মী আহত হয়েছন। তিন জনই বর্তমানে চিকিৎসাধীন রয়েছে এবং জানা যাচ্ছে যে তারা সকলেই বিপদ মুক্ত। পুলিশের তরফে জানানো হয়েছে, ঘটনাস্থল থেকে অসংখ্য একে-৪৭, তিনটি লাইট মেশিন গান-সহ একাধিক অস্ত্র উদ্ধার হয়েছে।

রাজ্যে মাও দমনে এটি সবচেয়ে বড় সাফল্য বলে দাবি করেন ছত্তীসগঢ়ের মুখ্যমন্ত্রী। মঙ্গলবার সন্ধ্যায় তিনি সাংবাদিকদের মুখোমুখি হয়ে বলেন, ‘‘আমি এই অভিযানে জড়িত সকলকে অভিনন্দন জানাই। তাঁদের সাহসিকতাকে কুর্নিশ জানাই। মাওবাদীরা গণতন্ত্রে বিশ্বাস করেন না। তারা হয়তো নির্বাচনকে প্রভাবিত করার চেষ্টা করত। যে এলাকায় এই অভিযান হয়েছে তা বস্তার এবং কাঙ্কের লোকসভা কেন্দ্রের কাছাকাছি। বস্তারে প্রথম দফায় ভোট হবে শুক্রবার।’’

বিএসফের এক মুখপাত্র এই অভিযান সম্পর্কে জানিয়েছেন, বিশেষ সূত্রে খবর পেয়ে মঙ্গলবার ছোটেবেটিয়া থানার অন্তর্গত এলাকায় যৌথ অভিযানে নেমেছিল ডিআরজি এবং বিএসএফ। জওয়ানদের লক্ষ্য করে গুলি ছুটে আসে। পাল্টা গুলি ছোড়েন জওয়ানেরা। অভিযানে ২৯ জন মাওবাদীর দেহ মিলেছে।

Related Articles

Stay Connected

17,141FansLike
3,912FollowersFollow
21,000SubscribersSubscribe
- Advertisement -spot_img

Latest Articles