৩৫ বছর পর প্রান পাচ্ছে সৌদি আরবের সিনেমা হল

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

ওয়েবডেস্ক, বেঙ্গল টুডে:

২০১৫ সালে ৩২ বছর বয়সী তরুন সলমন বিন আব্দুলাজ্জি সৌদি আরবের শাসনভারের দায়িত্ব পান। এরপর থেকেই দেশের রাজনীতিতে নতুন যুগের সুচনা হয়। এই নতুন যুগের সূচনায় তিনি ৩৫ বছরের নিষেধাজ্ঞা তুলে নিয়ে শীঘ্রই সিনেমাকে বৈধ ঘোষনা করা হবে বলে জানান। সেই মতে ১২ ই ডিসেম্বর ফের সৌদি আরবের তরুন রাজা সলমন বিন আব্দুলাজ্জি এই বার্তা দেন।

এর পাশাপাশি একে একে সৌদি আরবের ধর্মগুরু তথা ধর্মপুলিশদের ক্ষমতা কেরে নেন। অর্থাৎ একটা সময় ছিল যখন ধর্মগুরুরা চাইলেই যে কাউকে গ্রেফতার করতে পারতেন।সেই ক্ষমতাই কেরে নেন সলমন। এমনকি টুইটারে কট্টর মতাদর্শ যারা ছড়াচ্ছে তাদের নিয়ন্ত্রন করার কথা সলমন বলেন, পাশাপাশি নারীর অধিকারের দিকেও নজর দেন সলমন। যেমন তিনি বলেন, সৌদি আরবের বিভিন্ন স্থানে এখনও কর্মস্থলে মহিলারা কোণঠাসা ।,এছাড়া এখনও মহিলাদের বাড়ির বাইরে যেতে হলে পুরুষ অভিভাবকের সাথেই যেতে হয়। এই সমস্ত ক্ষেত্রেই তিনি পরিবর্তন আনতে চলেছেন বলে জানান । আর তাই ইতিমধ্যেই তিনি ঘোষণা করেন, এই দেশে মহিলাদের গাড়ি চালানোর বিষয়ে যে নিষেধাজ্ঞা ছিল আগামী জুন মাস থেকে তা তুলে দেওয়া হবে।

এক্ষেত্রে সৌদি আরবের সংস্কৃতি ও তথ্য মন্ত্রকের পক্ষ থেকে জানানো হয়, ” ২০১৮ সালের গোরা থেকেই শুরু হয়ে যাবে বানিজ্যিক ছবি তৈরির কাজ। শুরু হবে সিনেমা হল গুলিকে লাইসেন্স দেওয়ার প্রক্রিয়াও।”

অপরদিকে রাজা সলমনের ঘোষণায় আপ্লুত হন সৌদি আরবের তথ্য মন্ত্রি আওয়াদ আলাওয়াদ। এবং তিনি বলেন, ” দেশের সাংস্কিতিক অর্থনীতিতে ফের উন্নয়নের ঢেউ। আনন্দে চোখ ভিজে আসছে।”

সম্পর্কিত সংবাদ

Leave a Comment