পুজোর সাজের সাথে লিপস্টিক আর ঠোঁটের যত্ন

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

 

ওয়েব ডেস্ক, বেঙ্গল টুডেঃ পুজোয় বাহারি পোশাকের সঙ্গে মানানসই মেকআপও অত্যন্ত জরুরি। আর এ ক্ষেত্রে লিপস্টিক একটি অপরিহার্য অঙ্গ। ঠোঁটকে অনেক বেশি আকর্ষণীয় করে তোলে তবে সঠিক রং বা নিয়ম না জেনে লিপস্টিক লাগালে তা দৃষ্টিকটু লাগে। এই মুহূর্তে ম্যাজেন্টা, পিঙ্ক, ব্রাউন ইত্যাদি শেডস ইন ফ্যাশন। সে গুলোই ব্যাবহার করতে পারেন। পোশাকের সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে লিপস্টিকের শেড বাছাই করতে হবে। তাই পোশাক বুঝে লাল লিপস্টিকের শেডও ব্যবহার করা যেতে পারে। এবার রইল লিপস্টিক আর ঠোঁটের ত্বকের যত্ন নেওয়ার বিষয়ে কয়েকটি জরুরি পরামর্শ-

) ত্বকের মতো ঠোঁটের বাড়তি যত্ন নেওয়া প্রয়োজন। আর ঠোঁটে লিপস্টিক লাগানোর আগে অবশ্যই খেয়াল রাখতে হবে যেন ঠোঁটে মরা চামড়া না থাকে এবং ঠোঁট আদ্রতা বজায় থাকে।

) যদি ঠোঁটে গাঢ় এবং উজ্জ্বল রঙের লিপস্টিক ব্যবহার করা হয়, তাহলে চোখের মেকআপ হালকা বা ন্যাচারাল রাখতে হবে। কারণ, ঠোঁটের সঙ্গে চোখের মেইকআপও গাঢ় হলে দেখতে বেমানান মনে হতে পারে।

) ‘ট্রেন্ডি কালার’ বা লিপস্টিকের যে শেডসগুলি ইন ফ্যাশন সে সব রঙের লিপস্টিক যে সবাইকে মানাবে তা কিন্তু নয়। বরং নিজের চুল আর পোশাকের সঙ্গে মানানসই লিপস্টিক বেছে নেওয়া খুবই গুরুত্বপূর্ণ। কারণ, বেমানান রঙের লিপস্টিক ব্যবহার করলে দেখতে ভাল তো লাগবেই না, বরং তা হিতে বিপরীত হতে পারে।

) ত্বকের মেকআপ দীর্ঘস্থায়ী করতে এবং চোখের আইশ্যাডোর রং সুন্দর করে স্থায়িত্ব বাড়াতে যেমন প্রাইমার ব্যবহার করা হয়, তেমনি ঠোঁটে লিপস্টিক দেওয়ার আগে প্রাইমার লাগিয়ে নিলে লিপস্টিক সুন্দর মতো বসবে এবং দীর্ঘস্থায়ী হবে।

) ঠোঁটের গড়ন সুন্দর করে বোঝাতে নিখুঁতভাবে লিপস্টিক লাগাতে চাইলে, লিপস্টিক লাগানোর আগে একই রঙের লিপ লাইনার ব্যবহার করে লিপ লাইন করে নেওয়া উচিত। এতে লিপস্টিক দেখতে ভাল লাগবে।

) লিপস্টিক লাগানোর জন্য প্রথমে শুরু করতে হবে ঠোঁটের মাঝামাঝি অংশ থেকে। এরপর পুরো ঠোঁটে লাগিয়ে নিতে হবে। এতে করে পুরো ঠোঁটে নিখুঁতভাবে লিপস্টিক লাগানো যায়।

) ঠোঁটের উপরের ‘ভি’-এর মতো অংশটি এবং নিচের ঠোঁটের মাঝামাঝি অংশে হাইলাইট করলে ঠোঁট দেখতে আরও আকর্ষণীয় লাগে।

) প্রতিদিন লিপস্টিক না দিয়ে একটু বিরতি দেওয়া উচিত। তাছাড়া প্রতিদিন ঠোঁটে ময়েশ্চারাইজার ব্যবহার করতে হবে। ঠোঁটের ত্বক অনেক নমনীয় হয়, সঠিক যত্ন না নিলে ঠোঁটের ত্বকের ক্ষতি হতে পারে।

) ঘুমাতে যাওয়ার আগে যেমন ত্বকের মেকআপ তুলে পরিষ্কার করে নিতে হয়, তেমনি ঠোঁটের লিপস্টিকও উঠিয়ে নিতে হবে। না হলে ঠোঁটের ত্বকের ক্ষতি হতে পারে।

সম্পর্কিত সংবাদ