ঈদের খুশিতে সব অশান্তি ভূলে শ্বশুর বাড়িতে আসতেই খুন গৃহবধু

  শান্তনু বিশ্বাস ,বসিরহাট: সংসার মানেই সব সময়ই শান্তি, খুশী নয়, মাঝে মধ্যে একটু অশান্তিও। তা প্রায় সকলেরই জানা। আর এরই মধ্যে খুশির ঈদ আসায় দীর্ঘ দিনের পারিবারিক অশান্তির সব কথা ভুলে, খুসীর ঈদে স্বামীর কাছে এসেছিলো গৃহবধু। খুসীর দিনে স্বামী, স্বশুর এর একটু স্নেহ ভালোবাসা পাওয়ার আশায় ছুটে গিয়েছিলো নিজের জন্ম দাতা বাবা মা কে ছেড়ে। কিন্তু সেই স্নেহ পাওয়া তো দূরে থাক বরং সেই স্বামী, শ্বশুরের হাতেই প্রাণ গেল এক নিষ্পাপ গৃহবধুর, অতন্ত এমনটাই অভিযোগ ওই গৃহবধূর পরিবারের। এমনই এক দুঃখজনক ঘটনা ঘটে গেল উত্তর চব্বিশ পরগনার বসিরহাটের পিফা…

“আমাদের রাজ্যেও হীরক রাজার কোন বোন বসে আছে…” – রাহুল সিনহা

  নিজস্ব প্রতিনিধি, বেঙ্গলটুডেঃ রবিবার ১৭ই জুন, নোয়াপাড়া গ্রামীন মন্ডলের উদ্যোগে ব্যারাকপুর এর একটি অনুষ্ঠান বাড়িতে অনুষ্ঠিত হলো ভারতীয় জনতা পার্টির, কিষান মোর্চার রাজ্য কার্যকারিনী সভা। সভায় উপস্থিত ছিলেন বিজেপির কেন্দ্রীয় সম্পাদক রাহুল সিনহা, কৃষান মোর্চা রাজ্য সভাপতি রামকৃষ্ণ পাল, কিষান মোর্চার সহ সভাপতি মহেশ্বর সিং সহ রাজ্য বিজেপির অন্যান্য নেতৃবর্গ। এইদিন রাহুল সিংহ তার বক্তব্য রাখতে গিয়ে বলেন, “কাল আমি অমল পালের বাড়ি গিয়েছিলাম, সেখানে কথা হচ্ছিল তার রচিত গান নিয়ে। তখন আমার মনে হল তার সেই গান, “কতো রঙ্গ দেখি দুনিয়ায়” এর দৃশ্যের মত এখানেও আমাদের রাজ্যে হীরক রাজার…

ভ্রুণের লিঙ্গ নির্ধারণ রুখতে কড়া হাতে তৎপর দক্ষিণ দিনাজপুর জেলা প্রশাসন

পল মৈত্র, দক্ষিণ দিনাজপুরঃ এই ঘটনার সাক্ষী শুধু রাজ্যেই নয় সারা ভারত বর্ষেই হচ্ছেন সকল ভারতবাসী। আর এই রাজ্যে অন্য জেলার পাশাপাশি দক্ষিণ দিনাজপুরেও পরিসংখ্যান অনুযায়ী কন্যা সন্তানের জন্মের হার কমছে ব্যাপকভাবে। জেলায় পুরুষ ও মহিলা জনংসখ্যার ভারসাম্য বজায় রাখতে তাই সক্রিয় হল দক্ষিণ দিনাজপুর জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ। গর্ভস্থ ভ্রুণের লিঙ্গ নির্ধারণ বন্ধ করতে শুরু হল সচেতনতামূলক কর্মসূচি। যদিও এই মর্মে নিশেধাজ্ঞা রয়েছে অনেক পূর্ব থেকেই কিন্তু এতদিন শত সরকারী নিষেধাজ্ঞা থাকা সত্তেও দিব্যি রমরমিয়ে চলছিল এই ঘটনা বেশ কিছু স্থানে। এইবার স্বাস্থ্য পরিষেবার সঙ্গে জড়িত সরকারি, বেসরকারি প্রতিষ্ঠান ও…

মু্খ্যমন্ত্রীকে গালিগালাজ করার প্রতিবাদ করায় তৃনমূল কর্মীকে বেধরক মারধর বিজেপি কর্মীদের।

জয় চক্রবর্তী, বাগদাঃ পঞ্চায়েত নির্বাচনের পর থেকেই রাজ্য জুড়ে রাজনৈতিক হিংসা অব্যাহত । আর এবার ঘটনা ঘটে বাগাদা থানার রনঘাট পঞ্চায়েত এলাকায়। এলাকার বাসিন্দাদের অভিযোগ শনিবার রাতে তৃনমূল কর্মী স্বপন কুমার নাথ নিজের মুদি দোকানে বসে ছিল, সেসময় এলাকার এক বিজেপি কর্মী প্রদীপ পাত্র মদ্যপ অবস্থায় দলবল নিয়ে স্বপনের দোকানের সামনে এসে পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী তথা তৃনমূল দলের সুপ্রিমো মমতা ব্যানার্জির নামে গালিগালাজ করতে থাকে। স্বপন বাবু প্রতিবাদ করায় উপস্থিত বিজেপি সমর্থকদের সাথে বাগ বিতন্ডা শুরু হয়ে যায়। অভিযোগ সেই সময় বিজেপি কর্মী স্বপন পাত্র লাঠি ও লোহার রড দিয়ে স্বপন…