Thursday, October 20, 2022
spot_img

বাংলাদেশে চার সচিবের বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার রুল

বেঙ্গলটুডে প্রতিনিধি, ঢাকা:

আদালতের নির্দেশ সত্ত্বেও মুক্তিযোদ্ধা এক প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তার (পিআইও) চাকরির মেয়াদ এক বছর বৃদ্ধি না করায় চার সচিবসহ আটজনের বিরুদ্ধে আদালত অবমাননার রুল জারি করেছেন হাইকোর্ট। একইসঙ্গে, ওই পিআইওর স্থলে নতুন করে একজনকে অতিরিক্ত দায়িত্ব দিয়ে জারি করা বিজ্ঞপ্তিও স্থগিত করেছেন আদালত।

মুক্তিযুদ্ধ মন্ত্রণালয়ের সচিব, জনপ্রশাসন সচিব, অর্থ সচিব, দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা মন্ত্রণালয়ের সচিব ও মহাপরিচালক, জাতীয় মুক্তিযোদ্ধা কাউন্সিলের মহাপরিচালক, ময়মনসিংহের জেলা প্রশাসক এবং ত্রাণ ও পুনর্বাসন কর্মকর্তার বিরুদ্ধে কেন আদালত অবমাননার অভিযোগ আনা হবে না, তা রুলে জানতে চাওয়া হয়েছে। এক আবেদনের শুনানি নিয়ে মঙ্গলবার হাইকোর্টের বিচারপতি মো. নজরুল ইসলাম তালুকদার ও বিচারপতি সহিদুল করিমের সমন্বয়ে গঠিত বেঞ্চ এই রুল জারি করেন। আদালতে আজ আবেদনের পক্ষে শুনানি করেন ব্যারিস্টার এ বি এম আলতাফ হোসেন, তার সঙ্গে ছিলেন অ্যাডভোকেট শুভজিৎ ব্যানার্জি, এ আর এম কামরুজ্জামান কাকন ও সজিবুর রহমান।

অন্যদিকে, রাষ্ট্রপক্ষে ছিলেন ডেপুটি অ্যাটর্নি জেনারেল অমিত তালুকদার। পরে এ বি এম আলতাফ হোসেন সাংবাদিকদের জানান, ময়মনসিংহের মুক্তাগাছা উপজেলার পিআইও সিরাজুল ইসলাম সিদ্দিকী একজন মুক্তিযোদ্ধা। সে হিসেবে মুক্তিযোদ্ধা কোটায় চাকরিতে নিয়োগ পান। পরবর্তীতে যাচাই-বাছাই শেষেও তার মুক্তিযোদ্ধা নাম বহাল থাকে। তবে মুক্তিযোদ্ধার কোটায় চাকরির মেয়াদ এক বছর বৃদ্ধিসহ অন্যান্য সুযোগ-সুবিধা দেয়ার ক্ষেত্রে যে প্রত্যয়ন পত্র দেওয়া প্রয়োজন, সেটি তাকে প্রদান করা হয়নি।

তিনি আরও বলেন, এ অবস্থায় গত ৩১ মে স্বাভাবিকভাবে তার চাকরির মেয়াদ শেষ হওয়ার কথা। কিন্তু মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে তার চাকরির মেয়াদ বাড়ানো হয়নি। তাই সিরাজুল ইসলাম হাইকোর্টে একটি রিট করেন। সেই রিটের পরিপ্রেক্ষিতে গত ২৪ মে বিচারপতি নাইমা হায়দা ও বিচারপতি জাফর আহমেদের বেঞ্চ রিটকারী সিরাজুল ইসলামকে মুক্তিযোদ্ধা হিসেবে চাকরির মেয়াদ ৬০ থেকে ৬১ বছরে বৃদ্ধি ও অন্যান্য সুযোগ সুবিধা প্রদান করার জন্য নির্দেশনা দেন। আদালতের এমন রায় থাকা সত্ত্বেও গত ৩০ মে ময়মনসিংহের জেলা ত্রাণ ও পুনর্বাসন কর্মকর্তা মোহাম্মদ হোসেন স্বাক্ষরিত এক বিজ্ঞপ্তিতে সিরাজুল ইসলামের স্থলে পার্শ্ববর্তী ফুলবাড়ীয়া উপজেলার পিআইও মো. আ. বাসেদকে ১ জুন থেকে মুক্তাগাছার পিআইও হিসেবে অতিরিক্ত দায়িত্ব দেয়া হয়। এ কারণে হাইকোর্টে আদালত অবমাননার অভিযোগ এনে আবেদন করেন সিরাজুল ইসলাম। সেই আবেদনের শুনানি নিয়ে আদালত আজ এই আদেশ দেন।

Related Articles

Stay Connected

0FansLike
3,533FollowersFollow
0SubscribersSubscribe
- Advertisement -spot_img

Latest Articles