ট্রাফিক আইন ভাঙ্গলেন হেড কনস্টেবল

Share Bengal Today's News
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

ওয়েবডেস্ক, বেঙ্গলটুডেঃ

কানে মোবাইল দিয়ে রাস্তায় বাইক চালনো, হেলমেটটাও না পরা বললেই চলে। এমন ঘটনা আমরা প্রায়শই দেখি রাস্তা ঘাটে, আবার অপরদিকে আমরা দেখতে পাই, পুলিশ ট্রাফিক আইন মেনে চলার নির্দেশ দিতে, কিন্তু আইন রক্ষক যদি আইন ভক্ষক হয়ে পরে তখন কি আর কেউ আইনের তুয়াক্কা করবে? এমনই এক দৃশ্য ধরা পড়লো চণ্ডীগড়ের রাস্তায়। এক পুলিশ হেড কনস্টেবল সুরিন্দর সিংহের কীর্তি দেখে।

পথচলতি এক বাইক আরোহী সুনিত কুমার তাকে আইন ভাঙতে দেখে ফলো করে। সুনিত প্রথম থেকেই পুরো ব্যাপারটি ফলো করছিল এবং পুরো বিষয়টি মোবাইলে ক্যামেরা বন্দি করছিল,

এর কিছুক্ষন পরই বিষয়টি কনস্টেবল সুরেন্দ্র সিংহের নজরে পরে যায়। তিনি দেখতে পান তাকে ফলো করে একজন তার সমস্ত কিছু ক্যামেরা বন্দি করছে, এরপরই তিনি সেই বাইক চালককে এক চড় মারেন ও বাজে ভাষায় কথা বলেন।

এরপর সুনিত কুমার সেই ভিডিওটি সোশ্যাল মিডিয়াতে আপলোড করে। সোশ্যাল মিডিয়ার সূত্র ধরে ভিডিওটি পৌঁছে যায় প্রাক্তন কেন্দ্রীয় ও তথ্য সম্প্রচার মন্ত্রী মণীশ তিওয়ারির কাছে। তিনি ভিডিওটি দেখে এর তীব্র নিন্দা করেন এবং চণ্ডীগড় পুলিশের ডিজি তেজেন্দর লুথরার কাছে ঘটনার সত্যতা যাচাই করার জন্য আর্জিও জানিয়েছেন তিনি।

চণ্ডীগড় পুলিশের এসএসপি (ট্রাফিক) শশাঙ্ক আনন্দ এই বিষয়ের উপর জানিয়েছেন, ইতিমধ্যেই ট্রাফিক আইন ভাঙ্গা এবং সাধারণ নাগরিকের সঙ্গে অসভ্য আচরণের জন্য ওই কনস্টেবলকে সাসপেন্ড করা হয়েছে। কথা বলতে বলতে বাইক চালানো এবং ঠিকঠাক ভাবে হেলমেট না পরার অপরাধে তাঁর বিরুদ্ধে চালানও কাটা হয়েছে। সুরিন্দর সিংহের ড্রাইভিং লাইসেন্স বাজেয়াপ্ত করে পরিবহণ এবং লাইসেন্স দফতরে পাঠানো হয়েছে। আগামী তিন মাসের জন্য তাঁর লাইসেন্স বাজেয়াপ্ত হতে পারে বলে যানা যায়।

সম্পর্কিত সংবাদ