খড়দহে ঘুমের ওষুধ স্প্রে করে দুটি বাড়িতে চুরি

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

শর্বাণী দে, বেঙ্গল টুডেঃ

১৫ই মে রাতে উত্তর ২৪ পরগণার খড়দহের পাতুলিয়া অঞ্চলের দুটি বাড়িতে ঘুমের ওষুধ স্প্রে করে চুরির ঘটনা ঘটল। অভিযোগ, দুটি বাড়ি থেকে আনুমানিক ৫ লাখ টাকার জিনিসপত্র নিয়ে চম্পট দিয়েছে চোরেরা। বর্তমানে ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে খড়দহ থানার পুলিশ।

জানা যায়, প্রথম চুরির ঘটনাটি ঘটে পাতুলিয়া স্কুলপাড়ার বাসিন্দা অজিত সাঁতরার বাড়িতে। অন্যদিনের মতো এদিন রাতেও পরিবারের সঙ্গে প্রায় ১১টা নাগাদ ঘুমিয়ে পড়েছিলেন অজিতবাবু। তবে নিত্যদিনের মতো ১৬ই মে ভোরে তাঁর ঘুম ভাঙেনি। ঘুমে আচ্ছন্ন ছিলেন পরিবারের সকল সদস্যই। সকালে ঘুম ভাঙলে পরিবারের সদস্যরা দেখতে পান ঘরের সদর দরজা খোলা, খোলা আলমারিও। লকারে নেই দুই মেয়ের বিয়ের জন্য তৈরি করিয়ে রাখা সোনার গয়না। বাক্সগুলি উঠোনে পড়ে রয়েছে। মোট ১০-১২ ভরি সোনার গয়না ছিল বলে জানানো হয়েছে পরিবারের তরফে।

অজিতবাবু একটি স্কুলের চতুর্থ শ্রেণির কর্মী ছিলেন। ক্যান্সারে আক্রান্ত হওয়ার পর গতবছর স্বেচ্ছাবসর নেন তিনি। দুই মেয়ের বিয়ে জন্য ১০-১২ ভরি সোনার গয়না তৈরি করিয়ে বাড়ির আলমারিতে তিনি রেখে ছিলেন। ঘটনায় খড়দহ থানায় অভিযোগ দায়ের করা হয়েছে।

অপরদিকে দ্বিতীয় চুরির ঘটনাটি ঘটে পাতুলিয়া অঞ্চলেরই কাছারিবাড়ির বাসিন্দা সঞ্চিতা বৈশ্যর বাড়িতে। তাঁর বাড়িতেও দুষ্কৃতীরা একই কায়দায় লুটপাট চালায় বলে অভিযোগ। ১৬ই মে ভোরে সঞ্জিতাদেবীর ঘুম ভেঙে যায়। তিনি দেখেন, ঘরের দরজা খোলা, আলমারি খোলা। লকারে নেই চারজোড়া সোনার কানপাশা, দুটি মোবাইল ফোন ও নগদ ১১ হাজার টাকা। মোট ১ লাখ টাকার জিনিসপত্র চুরি গেছে বলে জানিয়েছেন সঞ্জিতাদেবী। খড়দহ থানায় অভিযোগ জানিয়েছেন বলে জানা যায়।

উল্লেখ্য দুটি চুরির ঘটনারই তদন্ত শুরু করেছে পুলিশ। ঘটনায় একই দল জড়িত বলে প্রাথমিকভাবে অনুমান পুলিশের।

সম্পর্কিত সংবাদ