৮ জন মিলে গণধর্ষণের অভিযোগ, আত্মঘাতী কিশোরী

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

ওয়েব ডেস্ক, বেঙ্গল টুডেঃ

হরিয়ানার মিউয়াত জেলার সোহনার কাছে খোর বাসাই গ্রামে ক্লাস টুয়েলভের এক ছাত্রীকে বাড়ি থেকে তুলে নিয়ে গিয়ে গণধর্ষণের অভিযোগ। এর দরুন গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মঘাতী হরিয়ানার ওই কিশোরী। অভিযোগ, ২৯শে এপ্রিল রাতে তাকে বাড়ি থেকে তুলে নিয়ে গিয়ে গণধর্ষণ করে গ্রামেরই আট বাসিন্দা। এরপর পরের দিন ভোরে অচৈতন্য অবস্থায় বাড়ির সামনে ফেলে রেখে যায় তারা। এই ঘটনার দরুন আত্মঘাতী হয় কিশোরী। দোষীদের ফাঁসির সাজা দাবি করেছেন মৃত কিশোরীর বাবা।

সুত্রের খবর, ঘটনার দিন ওই কিশোরীর মা বাবা এক আত্মীয়র বাড়ি গিয়েছিলেন। বাড়িতে একাই ছিল সে। অভিযোগ, সেই সুযোগে ২ টি বাইক ও একটি অন্য গাড়ি করে ৮ জন তার বাড়িতে আসে এবং জোর করে তাকে একটি নির্জন জায়গায় তুলে নিয়ে গিয়ে গণধর্ষণ করে। এরপর পরের দিন ওই কিশোরীকে বাড়ির সামনে পড়ে থাকতে দেখে তারই এক তুতো ভাই। খবর দেওয়া হয় তার মা বাবাকে। পরিবারের তরফে অপহরণ ও ধর্ষণের অভিযোগ দায়ের করা হয় থানায়। ওইদিনই বেলার দিকে বাড়িতে আত্মঘাতী হয় কিশোরী।

এছাড়া আরও জানা যায়, অভিযুক্তরা প্রভাবশালী পরিবারের সদস্য। ওই কিশোরীর পরিবারকে অভিযোগ তুলে নেওয়ার জন্য চাপ সৃষ্টিও করে তারা।

পুলিশি সুত্রে খবর, পকসো আইনের অধীনে অভিযুক্তদের বিরুদ্ধে আইনি পদক্ষেপ নিয়েছে পুলিশ। অপহরণ ও আত্মহত্যায় প্ররোচিত করার অভিযোগে মামলা দায়ের করে পুলিশ। বর্তমানে সেই অভিযোগের ভিত্তিতেই তদন্ত শুরু করেছেন পুলিশ। তবে এখনও পর্যন্ত কাউকে গ্রেফতার করেনি পুলিশ।

সম্পর্কিত সংবাদ