দশম শ্রেনীর ছাত্রীকে ধর্ষন, গ্রেফতার যুবক

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

পল মৈত্র, দক্ষিন দিনাজপুরঃ

এক ছাত্রীকে ধর্ষণ করার অভিযোগ উঠল এক যুবকের বিরুদ্ধে। ঘটনায় অভিযুক্ত যুবক আব্দুল কাদেরকে(২২) গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। ১৭ই এপ্রিল তাকে আদালতে তুলেছে পুলিশ। ১৬ই এপ্রিল রাতে ঘটনাটি ঘটে গঙ্গারামপুর থানার প্রাণসাগরের বাসুরিয়া এলাকায়। নির্যাতিতা যুবতীর অবস্থা আশঙ্কাজনক হওয়ায় বর্তমানে গঙ্গারামপুর মহকুমা হাসপাতালে চিকিৎসাধীন সে। গোটা ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে গঙ্গারামপুর থানার পুলিশ।

জানা যায়, নির্যাতিতা কিশোরী স্থানীয় হাই স্কুলে দশম শ্রেণির ছাত্রী। নির্যাতিতা যুবতী ১৬ই এপ্রিল বিকেলে মামার বাড়ি থেকে বাড়ি ফেরার সময় অভিযুক্ত আব্দুল কাদের তার পথ আটকায়। নির্যাতিতা কিশোরী ও অভিযুক্ত পরিচিত ছিল। ফলে ওই কিশোরী দাঁড়ায়। এর পর তাকে ফু্ঁসলিয়ে অভিযুক্ত যুবক ওই কিশোরীকে পাশের ব্রীজের নীচে নিয়ে যায়। সেখানে কিশোরীকে ধর্ষণ করে অভিযুক্ত যুবক। সন্ধ্যায় বিষয়টি নজরে আসে স্থানীয়দের। সংজ্ঞাহীন অবস্থায় নির্যাতিতা যুবতীকে পড়ে থাকতে দেখেন স্থানীয়রা। এরপর সঙ্গে সঙ্গে তাকে উদ্ধার করে গঙ্গারামপুর মহকুমা হাসপাতালে নিয়ে যায়।

এবিষয়ে নির্যাতিতার মা-র অভিযোগ, ঘটনার দিন তার মেয়ে মামার বাড়ি থেকে আসার পথে তার মেকে ব্রীজের নীচে তুলে নিয়ে গিয়ে ধর্ষণ করে। অভিযুক্তের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানিয়েছেন তিনি।

পুলিশি সুত্রে খবর, ঘটনার খবর পাওয়ার পর হাসপাতালে উপস্থিত হয় স্থানীয় থানার পুলিশ এবং সেখানে যুবতীর জ্ঞান ফিরলে সে পুলিশের কাছে অভিযুক্তের নাম বলে। এরপর পুলিশের কাছে লিখিত অভিযোগ দায়ের করে নির্যাতিতা কিশোরীর পরিবার। সেই অভিযোগের ভিত্তিতেই ঘটনার দিন রাতেই অভিযুক্ত আব্দুল কাদেরকে গ্রেপ্তার করে পুলিশ। ১৭ই এপ্রিল অভিযুক্তকে আদালতে তোলা হবে বলে জানান। যদিও অপরদিকে নির্যাতিতার অবস্থা আশঙ্কাজনক বলে জানা গেছে। ইতিমধ্যেই গোটা ঘটনার তদন্ত শুরু করেছে গঙ্গারামপুর থানার পুলিশ। বর্তমানে এই ঘটনার জেরে এলাকায় উত্তেজনা রয়েছে।

সম্পর্কিত সংবাদ