সাঁইথিয়ায় ক্যারাটে জানা কিশোরীর হাতে কাবু ৩

সাঁইথিয়ায় ক্যারাটে জানা কিশোরীর হাতে কাবু ৩

ওয়েবডেস্ক, বেঙ্গল টুডে:

সাঁইথিয়ার ১১ নম্বর ওয়ার্ডের ছত্রিপাড়ার এক কিশোরী রাস্তায় একদল রোমিওকে শায়েস্তা করল ক্যারাটের দ্বারা। ঘটনার জেরে সাঁইথিয়ার মানুষ কুর্নিশ জানান ওই সাহসী কিশোরীকে।

২৭ শে মার্চ থেকে শুরু হয় এবছরের উচ্চ মাধ্যমিক পরীক্ষা। আর ঠিক আগের দিনই সাঁইথিয়ার রাস্তায় একদল রোমিওকে শায়েস্তা করল ক্যারাটে জানা এক উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষার্থী। ঘটনায় পুলিশ ৩ জন অভিযুক্তকে গ্রেফতার করেন। বর্তমানে তাদের বিরুদ্ধে শ্লীলতাহানির অভিযোগ দায়ের করা হয়।

সুত্রের খবর, ২৭ শে মার্চ উচ্চমাধ্যমিক পরীক্ষা। তাই পরীক্ষার আগের দিন অর্থাৎ ২৬শে মার্চ পরীক্ষার প্রস্তুতি হিসাবে নিজের হাতঘড়িতে নতুন ব্যাটারি লাগাতে সাঁইথিয়ার ১১ নম্বর ওয়ার্ডের ছত্রিপাড়ার এক কিশোরী সন্ধে সাড়ে ৭টা নাগাদ পাড়া থেকে বেরিয়ে বড় রাস্তার মোড়ের দোকানে যায়। ফেরার পথে কামারপাড়ার কাছে বছর ১৮-১৯ এর ৩ জন রোমিও তার উদ্দেশ্যে অশ্লীল মন্তব্য করে। এরপর কিশোরী বলে, “রাস্তা ফাঁকা পেয়ে ওরা আমার হাত ধরে টেনে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। কিন্তু ওদের জানা ছিল না যে আমার ক্যারাটে প্রশিক্ষণ নেওয়া আছে। হাত ধরে টানাটানির সময় চিৎকার–চেঁচামেচি শুনে একটু দূরে দাঁড়িয়ে থাকা আমার জ্যেঠু ছুটে এলে ওই ৩ জন জ্যেঠুকে ধাক্কা দিয়ে মাটিতে ফেলে লাথি মারতে থাকে। এই দৃশ্য দেখে আমি আর ঠিক থাকতে পারিনি। ক্যারাটের কৌশল কাজে লাগিয়ে ওদের ৩ জনকে উচিত শিক্ষা দিতে শুরু করি। আমার মার খেয়ে বেগতিক বুঝে ওরা পালানোর চেষ্টা করছিল। ততক্ষণে স্থানীয় লোকজন জড়ো হয়ে ওই ৩ জনকে ধরে ফেলেন।” এরপর স্থানীয় বাসিন্দারাই অভিযুক্ত ৩ জনকে আটক করে উত্তম–মধ্যম দেন এবং থানায় খবর দেন।

পুলিশ সুত্রে খবর, ঘটনার খবর পাওয়ার সাথে সাথে সাঁইথিয়া থানার পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়ে অভিযুক্ত ৩ জনকে গ্রেফতার করেন। এরপর পুলিশ জিজ্ঞাসাবাদে জানতে পারেন ধৃত ৩ রোমিওর নাম অমিত সাহানি, ভাস্কর মণ্ডল ও দীপ মণ্ডল। ধৃতদের বিরুদ্ধে সাঁইথিয়া থানায় লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন কিশোরীর মা।

You May Share This

Leave a Reply

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.