রাজারহাটে মহিলার অস্বাভাবিক মৃত্যু

Share Bengal Today's News
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

ওয়েবডেস্ক, বেঙ্গল টুডে:

২৮শে মার্চ রাজারহাটের কাদা অঞ্চলে এক মহিলার অস্বাভাবিক মৃত্যু। মৃতের নাম বীথিকা মণ্ডল। ইতিমধ্যে ঘটনায় জড়িত থাকার অভিযোগে পুলিশ মৃতের স্বামী ভাস্কর মণ্ডল, শাশুড়ি ও জাকে আটক করেছে।

সুত্রের খবর, ৪ বছর আগে ভাস্করের সঙ্গে বীথিকার বিয়ে হয়। বীথিকা ভাস্করের তৃতীয় স্ত্রী। বর্তমানে তাদের ২ বছরের পুত্রসন্তান আছে। ভাস্করের আগের দুই স্ত্রী মারা গেছে। প্রথম পক্ষের স্ত্রী কীভাবে মারা গেছেন জানা যায়নি তবে দ্বিতীয়পক্ষের স্ত্রী ক্যানসারে আক্রান্ত হয়ে মারা যান।

পুলিশ সূত্রে খবর, জেরায় ভাস্কর জানান, ২৭শে মার্চ রাতে কালীপুজো শেষে সে বন্ধুদের সঙ্গে মদ্যপান করে বাড়ি ফিরেছিল। মদ খাওয়ায় বীথিকার সঙ্গে তার বচসা হয়। এরপর ভাস্কর ঘুমোতে যায়। অভিযোগ, ঘুমোতে যাওয়ার সময় সে একজনকে খাটের তলায় লুকিয়ে থাকতে দেখে। কিন্তু সে তাকে ধরতে পারেনি। পালিয়ে যায় ওই ব্যক্তি। ঘরে কে ছিল, তা নিয়ে বীথিকা ও ভাস্করের মধ্যে বচসা হয়।

ভাস্করের বক্তব্য, এরপর তার স্ত্রী অন্য ঘরে গিয়ে গলায় কাপড় জড়িয়ে সিলিং ফ্যান থেকে ঝুলে পড়ে। রাতে স্ত্রীকে ঝুলন্ত অবস্থায় সে দেখে। এরপর খবর পেয়ে বীথিকার বাপের বাড়ির লোকরা ঘটনাস্থলে আসেন এবং তারাই রাজারহাট থানায় ভাস্কর ও তার পরিবারের বিরুদ্ধে অভিযোগ দায়ের করেন। মৃতের পরিবারের অভিযোগ, ভাস্কর ও তার বন্ধুরা মিলে বীথিকাকে খুন করেছে। ইতিমধ্যে পুলিশ তৃতীয় ব্যক্তির খোঁজে তদন্ত করছে। দেহ ময়নাতদন্তের জন্য কলকাতার আরজি কর হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে।

সম্পর্কিত সংবাদ