অভিনেতা ফারুক শেখের ৭০ তম জন্মদিবসে ডুডলের মাধ্যমে গুগলের শ্রদ্ধাজ্ঞাপন

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

ওয়েবডেস্ক, বেঙ্গল টুডে:

২৫ শে মার্চ বলিউডের জনপ্রিয় অভিনেতা ফারুক শেখের ৭০ তম জন্মদিবস হিসাবে গুগল ডুডলের মাধ্যমে শ্রদ্ধাজ্ঞাপন করেন। যেখানে দেখা যাচ্ছে নিমিত মালাভিয়ের ডুডলটি ফারুক শেখের সিনেম্যাটিক ক্যারিয়ারকে ১৯৭০-এর দশকের হাতে-আঁকা মুভি পোস্টারের একটি শৈলীতে বিশেষভাবে সম্মানিত করে এবং বিশেষ করে উমরাও জান। ১৯৯০-এ আশ্চর্যজনকভাবে টেলিভিশনের রোমান্টিক নায়ক হিসাবে পরিচিত হন,  গুগল ডুডল তার ব্লগে সেই দৃশ্যই পোস্টে করেন। তিনি তাঁর অভিনয় জগতের অভিনয়ের পাশাপাশি পরোপকারীও ছিলেন। ১৯৭৭ সাল থেকে ১৯৮৯ সাল পর্যন্ত তিনি বলিউড দুনিয়ায় অনেক ছবিতে কাজ করেন। এরপর ১৯৮৮ সাল থেকে ২০০২ পর্যন্ত তিনি টেলিভিশন দুনিয়াতেও বেশ ভালো অভিনয় করেন।

ফারুক শেখ ১৯৪৮ সালে ২৫শে মার্চ গুজরাটের সুরাটে জন্ম গ্রহন করেন। ফারুক শেখ ছাড়াও তাঁর আরও ৪জন ভাই ছিল। কিন্তু তিনি তাদের মধ্যে বড় ছিলেন। এরপর তিনি আইনি বিষয় নিয়ে মুম্বাইয়ের সিদ্ধার্থ ল কলেজে পড়াশোনা করেন। এরপর তিনি তার আইনি কর্মজীবন বন্ধ করতে ব্যর্থ হওয়ার পর তিনি অভিনয় শুরু করেন।

অভিনয় জগতে তিনি সবচেয়ে বড় সুযোগ পান ১৯৭৩ সালে এমএস স্যাটুস এর ‘গারম হাওয়া’ছবিতে। যেখানে তিনি সমর্থক অভিনেতা হিসাবে কাজ করেন। তবে এই ছবিতে প্রধান অভিনেতা হিসাবে ছিলেন বলরাজ সাহানি। এরপর থেকেই তিনি ধীরে ধীরে পরিচিতি পেতে থাকেন। তাঁর অভিনয় জগতে কয়েকটি ছবি যেমন, ‘সাথ সাথ’, ‘চাশমে বাদ্দুর’, ‘কথা’, ‘কিসি সে না কেহনা’এবং ‘ইয়ে জাওয়ানি হে দিওয়ানি’।

মূলত তিনি তাঁর অভিনয় দুনিয়ায় ৪৮ টি ছবিতে অভিনয় করেন। এমনকি তিনি ‘লাহোর’-এ পার্শ্ব অভিনেতা হিসাবে অভিনয়ের জন্য ২০১০ সালে জাতীয় পুরস্কার পান। অবশেষে ২০১৩ সালে ২৮শে ডিসেম্বর তিনি দুবাইতে নিজের পরিবারের সাথে ঘুরতে গিয়ে মাত্র ৬৫ বছর বয়সে শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন।

সম্পর্কিত সংবাদ