পরীক্ষার মাঝেই জ্ঞান হারালেন মাধ্যমিক পরীক্ষার্থী, অভিযোগ পরীক্ষকদের বিরুদ্ধে

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

ওয়েবডেস্ক, বেঙ্গল টুডে:

১৯শে মার্চ পরীক্ষা চলাকালীন বেঞ্চে বসেই জ্ঞান হারিয়ে ফেলে এক পরীক্ষার্থী। অভিযোগ, পরীক্ষার্থীকে জ্ঞান হারাতে দেখে কোনও পদক্ষেপ নেননি পরীক্ষক। অমানবিকতার এই অভিযোগ উঠেছে ব্যারাকপুর ক্যান্টনমেন্ট স্কুল কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে। অসুস্থ পরীক্ষার্থীর নাম অঞ্জলি চৌধুরি।

এদিন মাধ্যমিকের অঙ্ক পরীক্ষা ছিল। টিটাগড় লক্ষ্মীঘাটের বাসিন্দা অঞ্জলি পরীক্ষা দেওয়ার সময় হঠাৎই জ্ঞান হারিয়ে ফেলে। অভিযোগ, পরীক্ষা চলাকালীন অঞ্জলিকে ডেস্কে মাথা রেখে শুয়ে থাকতে দেখেও গুরুত্ব দেননি পরীক্ষক। এরপর পরীক্ষা শেষে অঞ্জলির থেকে খাতা চাইতে গিয়ে তাকে সংজ্ঞাহীন অবস্থায় তিনি দেখতে পান। তাকে ওই অবস্থায় দেখেও কোনও পদক্ষেপ নেননি পরীক্ষক। এমনকি, স্কুলের বাইরে অ্যাম্বুলেন্স থাকা সত্ত্বেও স্কুল কর্তৃপক্ষ অঞ্জলিকে কোনও হাসপাতালে নিয়ে যায়নি বলে অভিযোগ।

এরপর বিষয়টি জানা মাত্রই সাহায্যের জন্য এগিয়ে আসে অঞ্জলির সহপাঠী ও তাদের অভিভাবকরা। সঙ্গে সঙ্গে তাকে অন্য অ্যাম্বুলেন্স ভাড়া করে ব্যারাকপুর বি এন বসু হাসপাতালে নিয়ে যায়। বর্তমানে সেখানেই চিকিৎসাধীন রয়েছেন অঞ্জলি। অপরদিকে মেয়ের অসুস্থতার জন্য পরীক্ষকদের দায়ি করেছে অঞ্জলির পরিবারের সদস্যরা।

তবে অসুস্থ থাকা সত্ত্বেও পিছু হটতে নারাজ অঞ্জলি। এদিন হাসপাতালে এসে একটু সুস্থ হতেই সে পরবর্তী পরীক্ষা দেওয়ার ইচ্ছা প্রকাশ করে। কিন্তু, কোনওরকম ঝুঁকি নিতে চান না চিকিৎসকরা। তাই হাসপাতালের মহিলা বিভাগেই অঞ্জলির পরীক্ষা দেওয়ার ব্যবস্থা করা হয়েছে। আর তাই নির্দিষ্ট সময় মেনে ২০শে মার্চ জীবনবিজ্ঞান পরীক্ষা সে হাসপাতালেই দেবে বলে জানা যায়।

সম্পর্কিত সংবাদ