28 C
Kolkata
Sunday, July 14, 2024
spot_img

কংগ্রেসের আইন অমান্যকে কেন্দ্র করে ধুন্ধুমার হওড়ায়

রাজীব মুখার্জি, হাওড়াঃ হাওড়া শহরে মেডিক্যাল কলেজ , নাগরিক স্বার্থে হাওড়া পুরসভার নির্বাচন, ধান ও পাঠের সহায়ক মূল্য বৃদ্ধির সহ একগুচ্ছ দাবিতে হাওড়ায় কংগ্রেসের আইন অমান্য ও জেল ভরো কর্মসূচি। যাকে কেন্দ্র করে ধুন্ধুমার হয় হাওড়া কর্পোরেশন চত্বর। পরিস্থিতি সামাল দিতে নামে বিশাল পুলিশ বাহিনী। তাতেই কংগ্রেস কর্মীদের সঙ্গে পুলিশের ধস্তা ধস্তি হয়। দুপক্ষের বাকযুদ্ধে উত্তপ্ত হয়ে ওঠে এলাকা। তবে ধস্তাধস্তিতে পুলিশি ব্যারিকেড ভেঙে ভিতরে ঢোকার চেষ্টায় আহত হন হাওড়া জেলা ছাত্র পরিষদের সভাপতি শাহিদ কুরেশি। আর গ্রেফতার হন তিন কংগ্রেস কর্মী। প্রথমে প্রশাসনের তরফে বিক্ষুব্ধ কংগ্রেস কর্মীদের শান্ত করার চেষ্টা করা হয়। পরে কংগ্রেস নেতৃত্বের তরফে উদ্যোগ নিয়ে কর্মীদের শান্ত করা হয়।

এদিনের আন্দোলনের নেতৃত্ব দেন প্রদেশ কংগ্রেস সভাপতি শ্রী সোমেন মিত্র মহাশয়। এছাড়াও আইন অমান্যতে অংশগ্রহণ করেন কংগ্রেস নেতা তথা সংসদ প্রদীপ ভট্টাচার্য। বিধায়ক অসিত মিত্র, প্রাক্তন সংসদ সর্দার আমজাদ আলী সহ একাধিক শীর্ষ নেতৃত্ব। এদিনের এই কর্মসূচি শুরু হয় বেলা বারোটায়।

জানা যায়, এদিন হাওড়া ময়দান ফ্লাইওভারের নীচে একটি জনসভা করে কংগ্রেস নেতৃত্ব। সেখান থেকে তৃনমূলের বিরুদ্ধে তোপ দাগেন কংগ্রেস নেতারা। পাশাপাশি তুলে আনেন হাওড়া পৌর নিগমের নির্বাচন না করে প্রশাসক নিয়োগের সিদ্ধান্তকেও। তাদের অভিযোগ, গণতন্ত্রের কণ্ঠরোধ করে প্রশাসক নিয়োগ করেছে তৃনমূল। সোমেন মিত্র তৃণমূলকে বিঁধে বলেন, ২০১১ সালে বাম সরকারকে উৎখাত করতে সমস্ত ডানপন্থী দল এক হয়েছিল। উদ্দেশ্য ছিল বদলা নয় বদল চাই। কিন্তু রাজ্যের মানুষ বদল দেখার পাশাপাশি দেখলো বদলার রাজনীতিও। কংগ্রেসের এদিনের কর্মসূচির অন্যান্য দাবিগুলির মধ্যে ছিল বন্ধ কারখানা খোলার দাবি রান্নার গ্যাস ও পেট্রোল ডিজেলের দাম কমানোর অর্জিও।

Related Articles

Stay Connected

17,141FansLike
3,912FollowersFollow
21,000SubscribersSubscribe
- Advertisement -spot_img

Latest Articles