সৎ মায়ের অত্যাচারে অত্যাচারিত হয়ে গায়ে আগুন

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

শান্তনু বিশ্বাস, হাবড়াঃ ১৯শে ডিসেম্বর, বিকাল সাড়ে ৪ টে নাগাদ হাবড়া থানার অন্তরগর্ত গোয়ালবাটি সুকান্ত পল্লী এলাকার এক নাবালিকা কে অগ্নিদগ্ধ অবস্থায় স্থানীয় বাসিন্দারা উদ্ধার করে হাবড়া হাসপাতালে নিয়ে আসে। চিকিৎসকেরা এলাকার বাসিদের জানায়, অগ্নিদগ্ধ মেয়েটির শরীরের প্রায় ৭৫% পুড়ে গেছে। অবস্থার অবনতি হওযায় কলকাতার আর জি কর হাসপাতালে রেফার করা হয় তাকে। বর্তমানে মেয়েটি আর জি কর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। অর্পিতা বিশ্বাস (১৫), ৫ বছর বয়সে অর্পিতার নিজের মা মারা যায়। পরে বাবা অরেবিন্দু বিশ্বাস দ্বিতীয় বিয়ে করে রিতা নামে এক মহিলাকে।

স্থানীয়দের দাবি, নানা ভাবে রিতা তার সৎ মেয়ে কে খুব অতাচার করত। এছাড়াও গত বছর বিদ্যালয় থেকে ছাড়িয়ে নিয়ে আসে জয়গাছি আদর্শ বিদ্যালয়। তার বেশ কিছু দিন আগে টিউশনি পড়া বন্ধ করিয়ে দেয়। স্থানীয়দের আরও অভিযোগ, এই রিতা বিশ্বাসের জন্য না না ভাবে অত্যাচারিত হয়ে গায়ে আগুন দেয় অর্পিতা।

স্থানীয়দের থেকে জানাযায়, অর্পিতা যখন গায়ে আগুন দিচ্ছিল, তখন অর্পিতার সৎ মা এবং তার দুই সন্তান বাইরে ঘোরা ঘুরি করছিল। সৎ মা অর্পিতার গায়ে আগুন দেওয়ার সাথে জড়িত বলে ক্ষোভ প্রকাশ করে স্থানীয় বাসিন্দারা। এখনো পযর্ন্ত থানায় কোন অভিযোগ হয়নি বলে খবর।

সম্পর্কিত সংবাদ

Leave a Comment