অতিরিক্ত পণের দাবিতে আত্মঘাতী ভিন রাজ্যের গৃহবধূ, গ্রেফতার সেনাকর্মী স্বামী

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

 

অর্ণব মৈত্র, বাগুইআটিঃ বিয়ের সময় দাবিমতো পন দেওয়ার পরও অতিরিক্ত পণের দাবিতে মানসিক এবং শারীরিক নির্যাতনের জেরে আত্মঘাতী এক ভিন রাজ্যের গৃহবধূ। এমনটাই অভিযোগ করেন গৃহবধূর বাবা। গৃহবধূর বাবার ওই অভিযোগের ভিত্তিতে গৃহবধূর স্বামী তথা সেনাকর্মী মরি ভেঙ্কট রামানাকে গ্রেফতার করে বাগুইআটি থানার পুলিশ।

পারিবারিক সুত্রে খবর, গত ২২ শে আগস্ট ২০১২ সালে বিয়ে হয় অন্ধপ্রদেশের বাসিন্দা শিবা নাগা জ্যোতির সঙ্গে মরি ভেঙ্কটারামানের। তারপর থেকে কর্মসূত্রে মরি ভেঙ্কট রামানা আলিপুরে এবং বাগুইহাটি সি বি পি ও সেনা কমপ্লেক্সে থাকতেন তার স্ত্রী ও চার বছরের মেয়ে এবং চার মাসের ছেলের সঙ্গে। অবশেষে গত ২রা ডিসেম্বর বাগুইহাটি সেনা কম্প্লেক্স থেকে ঝুলন্ত অবস্থায় তার স্ত্রীর মৃতদেহ উদ্ধার হয়।

অভিযোগ, গৃহবধূর বাবা অন্ধপ্রদেশের বাসিন্দা ইয়াগাদি শ্রীনিবাসন বাগুইআটি থানায় এসে অভিযোগ দায়ের করে যে তার মেয়ের কাছে অতিরিক্ত ৫ লক্ষ টাকা পণ চাওয়ায় তা না দিতে পারায় মরি ভেঙ্কটারামানা ও তার মা চৌতা মা মরি তাকে শারীরিক ও মানসিক অত্যাচার করত এবং মারধরও করতো। সেই অপমান সহ্য করতে না পেরে আত্মঘাতী হয় শিবা নাগা জ্যোতি। মূলত সেই অভিযোগের ভিত্তিতে মরি ভেঙ্কটারামানাকে গ্রেপ্তার করে বাগুইআটি থানার পুলিশ। তার বিরুদ্ধে আত্মহত্যার প্ররোচনা ধারায় মামলা রুজু করে ধৃত সেনা কর্মীকে আজ বারাসাত আদালতে পেশ করা হবে বলে জানা যায়।

সম্পর্কিত সংবাদ

Leave a Comment