সল্টলেক এফ ই ব্লকে স্বাস্থ্য দফতরের হানা

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

 

অর্ণব মৈত্র, সল্টলেকঃ ১৭ই নভেম্বর সল্টলেক এফ ই ব্লকে বিধাননগর কর্পোরেশনে স্বাস্থ্য দফতরের হানা। এই ব্লকের মধ্যে থাকা দুটো বস্তিতে চলে ডেঙ্গু অভিযান। মিলল প্রচুর পরিমান লার্ভা। এর জেরে ১৫ দিনের মধ্যে বস্তি খালি করে দেওয়ার নির্দেশ দেওয়া হলো বস্তি বাসিদের। না খালি করলে বুলডেজার দিয়ে ভেঙে ফেলা হবে বলেও জানান মেয়র পরিষদ প্রণয় রায়। আগামী দিনে বাকি বস্তিতেও অভিযান চালানো হবে বলেও জানান তারা।

সম্প্রতি সল্টলেকে সোয়াইনফ্লুতে এক মহিলার মৃত্যুর ঘটনায় নড়েচড়ে বসলো বিধাননগর কর্পোরেশন। এদিন সকাল ১১:৩০ টার পর থেকে সল্টলেকের এফ ই ব্লকে বিধাননগর কর্পোরেশনের মেয়র পরিষদ প্রণয় রায়-এর নেতৃত্বে স্বাস্থ্য কর্মীদের নিয়ে পরিদর্শনে যান। সঙ্গে ছিল স্থানীয় কাউন্সিলর নীলাঞ্জনা মান্না ও ৫ নম্বর বোরো চেয়ারম্যান অনিতা মন্ডল।


উল্লেখ্য, সম্প্রতি সোয়াইনফ্লুতে যে মারা গেছে তার বাড়িতে গিয়ে পরিবারের সাথে কথা বলেন তারা। এলাকায় ছাড়ানো হচ্ছে ব্লিচিং পাউডার। এলাকায় আর কেউ অসুস্থ আছে কিনা, কারো জ্বর হয়েছে কিনা সে সব বিষয় খোঁজ খবর নেওয়া হয়। এদিন বাসিন্দারা তাদের ব্লকের মধ্যে থাকা দুটো বস্তির বিরুধ্যে অভিযোগ করলে সেই অভিযোগের ভিত্তিতে এদিন হানা দেয় ওই দুটি বস্তিতে। গিয়ে দেখা যায় অপরিস্কার ভাবে এবং বিভিন্ন বালতি বা হাড়ির মধ্যে জমে থাকা জলে রয়েছে মশার লার্ভা। শুধু তাই নয় বাতিল টায়ার দিয়ে তৈরি কুয়ো রয়েছে তার মধ্যেও রয়েছে মশা। এরপরই রেগে যান তিনি। আর সেখান থেকেই বস্তি বাসিদের ১৫ দিনের মধ্যে খালি করে এখান থেকে চলে যাওয়ার নির্দেশ দেন মেয়র পরিষদ প্রণয় রায়।

সম্পর্কিত সংবাদ

Leave a Comment