28 C
Kolkata
Thursday, July 18, 2024
spot_img

হুজুগে বাঙালির উদর পূর্তির নতুন ঠিকানা

রাজীব মুখার্জী, ধর্মতলা, কলকাতাঃ  "খাই খাই কর কেন, এস বস আহারে-
খাওয়াব আজব খাওয়া, ভোজ কয় যাহারে।
যত কিছু খাওয়া লেখে বাঙালির ভাষাতে,
জড় করে আনি সব, থাক সেই আশাতে।"

১৩ই অক্টোবর খাদ্য রসিক বাঙালির পেট পুজোর উদ্দেশ্যে পরিবহণ দফতরের তরফ থেকে চালু হলো অভিনব উদ্যোগ ডাল, ভাত, তরকারি ফলমূল শস্য, আমিষ ও নিরামিষ, চর্ব্য ও চোষ্য। সুস্বাদু পদের রান্নায় রসনা তৃপ্তি সাথে ভিক্টোরিয়াআনার ঐতিহ্যের মিশ্রনে কলকাতা ট্রাম কোম্পানির তরফে এই উদ্যোগ। পুজোয় প্যান্ডেল ঘুরতে ঘুরতে পেটে খিদের আভাস এলেই উঠে পড়ুন এই শীততাপ নিয়ন্ত্রিত ট্রামে, এখানে আপনি ট্রামের ভিতরেই কবজি ডুবিয়ে উদরপূর্তির করার সুযোগ পাবেন। আপাতত ধর্মতলা থেকে শীতাতপ নিয়ন্ত্রিত এই ট্রামের যাত্রা পথ খিদিরপুরের রাস্তা ধরে উঠে পড়লে নানা স্বাদের খাবার চেখে দেখতে পারবেন। পুজোর পর চাইনিজ, কনন্টিনেন্টাল খাবারও পাওয়া যাবে।

ধর্মতলা থেকে যাত্রা শুরু করে ময়দানের মনোরম পরিবেশের মধ্যে দিয়ে যাত্রা বাঙালির নস্ট্রালজিয়াকে উস্কে দিয়ে বাঙালি রোমান্টিকতা ও রসনাতৃপ্তির মিশেল এই উদ্যোগের মূল মন্ত্র। ১৩ই অক্টোবর ভ্রাম্যমান এই রেস্তরাঁ ট্রাম উদ্বোধন করলেন রাজ্যের পরিবহণমন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারী। উপস্থিত ছিলেন কলকাতা পুলিশের কমিশনার রাজীব কুমার-সহ পদস্থ পুলিশকর্তারা।

[espro-slider id=13132]

পরিবহণ মন্ত্রী এদিন বলেন, “ট্রামের মধ্যে রেস্তরাঁ চালু হল। ট্রামে যেতে যেতে খাবার খেতে কেমন লাগে আপনারাই খেয়ে দেখুন!” গোটা পরিকল্পনার রূপকার সঞ্জয় গোস্বামী বলেন, " পাঁচতারা হোটেলের স্বাচ্ছন্দ্য পাবেন খাদ্যরসিকেরা। মাথাপিছু খরচ হবে ৯৯৯/-. নিরামিষ যারা খান তাদের জন্যও ব্যবস্থা আছে। নিরামিষ খাবারের জন্য খরচ হবে ৭৯৯/-। গাড়ি নিয়ে এলে পার্কিংয়ের ব্যাবস্থাও আছে। পুজোর সময়ে এই ব্যবস্থা খুব ভালো চলবে "।

রেলের খাওয়ার সরবারহকারী বেসরকারি সংস্থা এই রেস্তরাঁ চালানোর দায়িত্ব নিয়েছে। ওই সংস্থা দীর্ঘ দিন ধরেই ক্যাটারিং হোটেল, রেস্ট্রুরেন্ট ব্যবসার সাথে যুক্ত। তারা রাজ্য পরিবহন দফতরের টেন্ডারে অংশ নিয়ে এই রেস্ট্রুরেন্ট চালানোর অনুমতি পেয়েছে। কলকাতার মধ্যে এই প্রথম কোনও ট্রামে ভ্রাম্যমান রেস্তরাঁ চালু হল। পুজোর পরেও সারা বছর ট্রামে চড়ে খাবার সুযোগ থাকবে। এই দূর্গা পুজোয় কলকাতায় খাদ্য রসিকদের কাছে নতুন উদরপূর্তির ঠিকানা হতে চলেছে এই ভ্রাম্যমান ট্রাম রেস্ট্রুরেন্ট। কলকাতায় ট্রাম কোম্পানির এটি এক নতুন পদক্ষেপ এই শারোদোৎসবে হুজুগে বাঙালির হ্যাংলামোকে আরো উস্কে দেবে তা আর বলার অপেক্ষা রাখে না।

Related Articles

Stay Connected

17,141FansLike
3,912FollowersFollow
21,000SubscribersSubscribe
- Advertisement -spot_img

Latest Articles