মদ্যপান করে অশান্তি, ছেলেকে নিয়ে থানায় সোজা হাজির বৃদ্ধ দম্পতি

Spread the love
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  

 

শান্তনু বিশ্বাস, অশোকনগরঃ মদ খাওয়া যে শরীরের ক্ষতি তা সকলের জানা। তাই মা বাবা বার বার বারন করেছিল মদ না খেতে। আর খেয়ে বাড়িতে এসে শুধু অশান্তি নয় চলতো মা বাবাকে মারধর, ঘরের জিনিস পত্র ভাঙচুর। অনেক বুঝিয়ে যখন আর কথা শুনতে নারাজ তখন বাধ্য হয়ে উচিত শিক্ষা দিতে সোজা পিঠ মোড়া করে নিজের ভ‍্যানে করে নিয়ে হাজির অশোকনগর থানায়।

১১ই অক্টোবর বৃহস্পতিবার তখন ঘড়ির কাটা সাড়ে তিনটে ছুই ছুই। বাবা ভ‍্যান চালিয়ে নিয়ে আসে আর মা বসে আসে। ভ‍্যানে পিঠমোড়া নিয়ে আসে। যখন তার বাধাঁর কারনে লাগছিল বলেন “বাবা লাগছে তো খুলে দাও” পাশে দাঁড়িয়ে বাবা বলেন, বুড়ো বয়সে আর কত মার খাবো, মদ খাওয়া ছাড়বে তারপর ছাড়বো। পাশে মা দাড়িয়ে বলেন, লাগুক মদ খাওয়া ছাড়লে তারপর খুলবো। কিন্তু পুলিশের কাছে যাবার আগে কী একটা ভেবে বাড়ির পথে রওনা দিলেন দম্পতি সহ ছেলেকে নিয়ে।

অশোকনগর থানার অন্তরগর্ত নবজীবন পল্লী এলাকায় বাড়ি। দুই ছেলে এক মেয়ে। মেয়ের বিয়ে হয়ে গেছে বড়ো ছেলে বিয়ে করে সংসার আলাদা হয়ে গেছে। বছর সাতাশের ছোট ছেলে নিয়ে থাকেন বৃদ্ধ দম্পতি। বাবা ভ‍্যান চালায়। ছেলে মাঝে রাজমিস্ত্রির কাজ করে যা রোজগার করে তা নেশা করে উড়ায়।

পরিবার সূত্রে জানা যায়, এখন প্রতিদিন মদ খেয়ে পাড়ার মানুষদের গালিগালাজ করে। বাড়ি এসে ঘরের টিভি, শোকেশ, ভাঙে বাধা দিতে গেলে আমাদের মারধর করে। আর তাতে ধৈর্যের বাঁধ ভাঙ্গে। বাবা দুই চোখে জল নিয়ে বলেন, বয়স তো অনেক হয়েছে এখন আর অশান্তি ভালো লাগে না ছেলেটাকে একটু সুস্থ দেখতে চাই।

সম্পর্কিত সংবাদ

Leave a Comment