সাদা পোশাকের কৌলিন্য, সাদরে বরণ ও নতুন পোশাকে সেজে উঠলো হাওড়া পুলিশ

সাদা পোশাকের কৌলিন্য, সাদরে বরণ ও নতুন পোশাকে সেজে উঠলো হাওড়া পুলিশ

 

রাজীব মুখার্জী ও মণি শঙ্কর বিশ্বাস, হাওড়াঃ কৌলিন্য হারালো কলকাতা পুলিশ। ১লা অক্টোবর ২০১৮, নিঃশব্দে ঘটে গেলো এক পরিবর্তন এই রাজ্যে। না সরকার বদল নয়,বদলালো এই রাজ্যের পুলিশের পোশাকের রং। এদিন রাজ্য পুলিশ কর্মীদের পোশাক পরিবর্তন হল আর এই পরিবর্তনের সাথেই কৌলিন্য হারালো কলকাতা পুলিশ, এমনটাই মনে করছে রাজ্যবাসী।

বিগত ১৮৪৫ সাল থেকে যে কৌলিন্যতা দেশের পুলিশ বিভাগের মধ্যে একদম আলাদা করে রেখেছিলো তাকে এদিন কলকাতা পুলিশের মতোই সেই সাদা পোশাক গায়ে উঠলো রাজ্য পুলিশের ইউনিফর্মেও। আর সেদিক থেকে দেখলে ব্রিটিশ আমল থেকে চলে আসা খাকি উর্দির বিদায় জানানো হলো। কিন্ত রাজ্যের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় পুলিশের পোশাকের রং বদল করার ক্ষেত্রে নির্দিষ্ট কয়েকটি জায়গা বেছে নিয়েছেন। রাজ্যের ছয়টি পুলিশ কমিশনারেটে কর্মরত কনস্টেবল থেকে ইনস্পেকটর পদমর্যাদার অফিসারদের জন্য এই উর্দি বদলের প্রস্তাব করা হয়েছে। এছাড়া সাদা পোশাকের পাবেন কমিশনারেটের আওতাধীন ট্রাফিক কর্মীরাও। এই বছর পুজোর আগে নতুন সাজে হাওড়া সিটি পুলিশ।

১লা অক্টোবর থেকে হাওড়া পুলিশ কমিশনারেটে পুলিশ কর্মীদের সাদা উর্দি পরে ডিউটি করতে দেখা যায়। পাশপাশি কমিশনারেটের সমস্ত থানার ট্রাফিক কনস্টেবল এবং ইন্সপেক্টরদেরও সাদা উর্দি পরে রাস্তায় নামতে দেখা যায়। হাওড়া সিটি পুলিশের এসিপি (ট্র্যাফিক) অশোক চট্টোপাধ্যায় বলেন, ‘‘রাজ্য সরকার নির্দেশ জারি করেছিল, কমিশনারেট এলাকায় পুলিশের পোশাক সাদা হবে। সেটাই আজ, ১লা অক্টোবর থেকে চালু হল’’। তবে, এসিপি ও ডিসিপি পদে পুরানো খাকি পোশাকই থাকছে।

এবিষয়ে আগেই রাজ্যের স্বরাষ্ট্র দপ্তরের তরফে জানানো হয়েছে, সবকটি পুলিশ কমিশনারেট-সহ রাজ্যজুড়ে পুলিশ কর্মীদের উর্দির রং বদল করা হবে। কনস্টেবল থেকে ইনস্পেক্টর, সমস্ত স্তরের পুলিশকর্মীদের উর্দির রঙ পরিবর্তনের প্রস্তাবও পাঠানো হয়। সত্যি কথা বলতে, খাস কলকাতায় পুলিশকর্মীদের উর্দির রঙে তফাৎ আছে। আইপিএস পদমর্যাদার অফিসাররা খাকি পোশাক পরেন। কিন্তু, ও.সি. থেকে কনস্টেবল, যাঁরা থানা সামলানোর দায়িত্বে থাকেন, তাঁদের উর্দির রং সাদা করারও বিজ্ঞপ্তি জারি হয় গত মাসেই। শহরতলির বহু এলাকার আবার রাজ্য পুলিশের অধীনে। সেখানে খাকি উর্দিতে দায়িত্ব পালন করেন পুলিশকর্মীরা। সেই ভেদাভেদটা মুছে দিতেই এই উদ্যোগ বলে জানানো হয় প্রশাসনের তরফে।

স্বরাষ্ট্র দপ্তরের বক্তব্য অনুযায়ী, সাদা উর্দিতে ভিড়ের মধ্যেও পুলিশকর্মীদের সহজে চেনা যায়। রাজ্য স্বরাষ্ট্র দফতর সূত্রের খবর, গত ১৩ই সেপ্টেম্বর রাজ্য প্রশাসনের তরফে উর্দি বদল নিয়ে রাজ্য সরকারের তরফে রাজ্য পুলিশের ডি.জি. বীরেন্দ্রর কাছে একটি খসড়া প্রস্তাব দেওয়া হয়েছিল তাতে ওই কমিশনারেটগুলির পুলিশ কর্মীদের পোশাকের রং খাকি থেকে সাদা করার প্রস্তাব দেওয়া হয়েছিল। যদিও আপাতত কমিশনারেটের বাইরে রাজ্যের অন্যান্য থানার পুলিশ কর্মীদের পোষাকের রং খাকিই থাকবে। পরবর্তীকালে সেগুলোও পরিবর্তন হবে। সশস্ত্র পুলিশকর্মীরাও খাকি উর্দি পড়বেন। এই বিষয়ে চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নিয়ে এদিন রাজ্য সরকারের ইচ্ছেকে বাস্তবায়িত করা হয় হাওড়া জেলায়।

প্রসঙ্গত ২০১৩ সালে এরকম প্রস্তাব দিয়েছিল স্বরাষ্ট্র দফতর। তবে সেই সময় খাকির বদলে সাদা জামা ও নীল প্যান্টের প্রস্তাব দেওয়া হয়েছিল। কিন্তু সেই প্রস্তাবে নিচু তলার পুলিশ কর্মীদের মধ্যে ক্ষোভ দেখা দেয়। তাদের অভিযোগ ছিল, শুধু নিচু তলার কর্মীদেরই কেন পোশাক বদল হচ্ছে? পুলিশ আধিকারিকদেরও একই পোশাক দেওয়া হোক। তাই এইবার সেই বিতর্ক এড়াতে কলকাতা পুলিশের মতোই সাদা পোশাক দেওয়ার পরিকল্পনা রয়েছে রাজ্য স্বরাষ্ট্র দফতরের। রাজ্যের মোট ছয়টি পুলিশ কমিশনারেট ব্যারাকপুর, আসানসোল-দুর্গাপুর, হাওড়া, বিধাননগর, চন্দননগর ও শিলিগুড়ি কমিশনারেট রয়েছে। ১লা অক্টোবর থেকে এই সমস্ত কমিশনারেটের আওতাধীন পুলিশকর্মীদের গায়ে সাদা পোশাক দেখা যায়।

এদিন সেই সাদা পোশাক পরে কর্মরত সাঁতরাগাছি ট্রাফিকের বেশ কিছু পুলিশ কর্মীদের দেখা যায়। তাদের মধ্যে একজন বেঙ্গল টুডের প্রতিনিধিকে বলেন, “আগের থেকে ভাল হয়েছে। আগের খাঁকি পোশাকের থেকে সাদা পোশাক ভাল লাগছে দেখতে কিন্তু সারাদিন যে রাস্তার ধোঁয়া, ধুলোর মধ্যে কাজ করি তাতে এই রং টিকিয়ে রাখা খুব কঠিন হবে। পোশাক যত্নের দায়িত্ব বাড়লো এবার “। অবশ্য এই সাদা পোশাক বেছে নেওয়ার পেছনে একটি বৈজ্ঞানিক কারনও আছে, কারণ সাদা রং সূর্য থেকে আসা তাপ শোষণ করে না। অপর দিকে জাগাছা থানার কর্তব্যরত অফিসার ইন -চার্জ বলেন, তিনি এই সাদা পোশাকে বেশ গর্বিত বোধ করছেন। সাদা পোশাকের যে মর্যাদা ও গ্ল্যামার এতদিন কলকাতা পুলিশের ছিল তার সাথে হাওড়া পুলিশ যুক্ত হওয়াতে পুজোর আগে হাওড়া পুলিশ মহলে বেশ খুশির আবহাওয়া।

You May Share This
  • 2
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    2
    Shares

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Copy Protected by Chetan's WP-Copyprotect.