কয়েক ঘন্টার মধ্যে চোখের সামনে মৃত্যুর কলে ঢলে পড়তে দেখলো মেয়ে তার মাকে

Spread the love
  • 244
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
    244
    Shares

 

অরিন্দম রায় চৌধুরী, ব্যারাকপুরঃ বেসরকারি বাসের ধাক্কায় মৃত্যু হল এক মহিলার। ১০রা জুলাই, মঙ্গলবার সকালে পথ দুর্ঘটনাটি ঘটে উত্তর ২৪ পরগনার ব্যারাকপুরের চিড়িয়ামোড়ে। বারাকপুর পোর্ট ব্লেয়ার লেনের বাসিন্দা মৃত নীতা গুপ্তা (৩৬), স্বামী প্রমথ কুমার গুপ্তা পেসায় স্থানীয় ব্যবসায়ী। সকালে ব্যারাকপুরের একটি বেসরকারি স্কুলের ক্লাস ৪-এর পড়ুয়া একমাত্র মেয়ে দিকশা গুপ্তা (১০) কে নিয়ে স্কুলের বাসে তুলে দিতে গিয়েছিলেন চিরিয়ামোড়ে। সে সময় রাস্তা পার হতে গিয়ে তাঁকে আচমকা ধাক্কা মারে ৮১ নম্বর রুটের একটি ব্যাসরকারী বাস। যথারীতি বাসের নিছে তলিয়ে যায় নিতা দেবি ও তার মেয়ে, বাসের পেছনের চাকাটি উঠে যায় নিতা দেবির বাম পায়ের উপর, স্থানীয় লোকজন ও বারাকপুর ট্রাফিক পুলিশের সাহায্যে বাসটিকে ঠেলে সরিয়ে তাদের কে উদ্ধার করা হয়। গুরুতর জখম হন নীতা দেবী। মা ও মেয়ে কে ব্যারাকপুর বি এন বসু মহকুমা হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হলে সেখানেই চিকিৎসা চলাকালীন অবস্থায় মৃত্যু হয় নিতা দেবীর। স্থানীয়দের অভিযোগ, দুর্ঘটনার পরই নিত্যযাত্রীরা ধাওয়া করে বাস চালক কে, কিন্তু সে রাস্তার উপর বাস ফেলে পালিয়ে যায়। নিতা দেবির মেয়ের কাছে ঘটনার সম্বন্ধে জানতে চাইলে সে বলে, “মায়ের হাত ধরে রাস্তা পার হচ্ছিলাম, বাসটা ধাক্কা মারল”। বারাকপুর ট্র্যাফিক পুলিশ কর্মীদের তৎপরতায় ঘাতক বাসটিকে আটক করা হয়, পরে টিটাগড় থানার হাতে তুলে দেওয়া হয় বাসটিকে। পুলিশ এখন অভিযুক্ত বাসচালকের খোঁজে।

সম্পর্কিত সংবাদ